ওড়ো অবাধে হয়ে অবাধ্য
        অর্জিত হোক যা কিছু অসাধ্য...

ACANOCM205266772_006
যাদের ফটোগ্রাফি বিষয়ে আগ্রহ রয়েছে এবং ফটোগ্রাফার হতে চান তাদের প্রত্যেকেরই স্বপ্ন থাকে একটি DSLR কেনার।কিন্তু দামের কারনে সবার তা কেনা হয়ে ওঠে না। আবার অনেকেই কনফিউশনে পড়ে যান বাজেটের মধ্যে কোনটি বেস্ট হবে।তবে কেনার পূর্বে নিজের প্রয়োজন এবং কি কি কাজে ক্যামেরাটি ব্যবহার করা হবে সেটা চিন্তা করা উচিত সবার আগে। 

Canon 650D


তবে আজ আমি যে ক্যামেরার একটা সর্ট রিভিউ দিবো সেটা হল Canon EOS 650D.. অনেকেই ক্যামেরার জন্য বাজেট ৫০হাজার ঠিক করে থাকেন।এই বাজেটে  Canon 650D অনেক ভাল এবং এডভান্স বিগিনিং একটা ক্যামেরা। মার্কেটে আর একটি ক্যামেরা রয়েছে।সেটি হল Canon EOS 700D.. স্পেসিফিকেশন সবই প্রায় এক।জাস্ট রিলিজিং ইয়ারটা ভিন্ন।যাইহোক আমি যেহেতু Canon 650D টা ইউস করতেসি তাই এই কামেরাটির একটি সর্ট রিভিউ দেয়ার চেষ্টা করব।চলুন দেখে নেই এর মেইন স্পেসিফিকেশন:

 

  • ক্যামেরা: Canon EOS 650D
  • সেনসর: CMOS
  • সেনসর সাইজ: 22.3×14.9mm
  • মেগাপিক্সেল:18mp
  • এফ.পি.এস: 5fps
  • আই.এস.: 12800(Max)
  • ডিসপ্লে: 3″(1040k Dots)
  • ভিডিও: 1080p @ 30fps, 720p @60fps সাথে Autofocus & Continuous focus..
  • ফোকাস পয়েন্ট: 9 points(All cross type) সাথে Autofocus
  • সাটার স্পিড: 1/4000s(Max), 30s(Min)

এই হল মোটামুটি ক্যামেরার মেইন স্পেসিফিকেশন।এখন ব্যবহারের ভিত্তিতে ক্যামেরাটির কিছু সুবিধার কথা বলছি…

• ক্যামেরাটিতে রয়েছে টাচ স্ক্রিন ডিসপ্লে।অনেকের মতে DSLR এ টাচ খুব একটা জরুরি নয়।আমিও মানি সেটা।তবে এই সুবিধাটি থাকার ফলে ক্যামেরা ব্যবহার অনেক স্বাচ্ছন্দ্যময় হয়ে উঠেছে।জাস্ট টাচ করে অনেক ফাস্ট কাজ করা যায়।অন্যদের সামনে টাচের মাধ্যমে ক্যামেরা ইউস করার ভাবই আলাদা.. :p
• ক্যামেরাটিতে fps দেয়া আছে 5fps..মানে সেকেন্ডে সর্বোচ্চ পাঁচটি করে সাটার পড়ে।এবং যথেস্ট ফাস্ট আর স্মুথ মনে হয়েছে আমার কাছে।
• প্রসেসর হল ডিজিক 5..যার ফলে অনেক ফাস্ট কাজ করে ক্যামেরাটি।আরও রয়েছে হাইব্রিড অটোফোকাস CMOS সেনসর।
• ফোকাস পয়েন্ট রয়েছে নয়টি।এর মধ্যে নয়টিই ক্রস টাইপ ফোকাস পয়েন্ট।অর্থাৎ ফোকাসিং সিস্টেম অনেক ভাল এবং ফাস্ট।
• এক্সট্রা সুবিধা আর একটা রয়েছে বিল্ট ইন HDR..অর্থাৎ ক্যামেরার মাধ্যমেই HDR ইমেজ তোলা সম্ভব।

 

এইতো অনেক কিছুই বললাম।ক্যামেরাটি আমি নিজে ইউস করতেছি ।পারফরমেন্স অনেক ভালো।মোটকথা আমি সম্পূর্ণভাবে সেটিসফাইড। ১৮-৫৫মিমি কিট লেন্স সহ ক্যামেরার মার্কেট প্রাইস বর্তমানে ৫০৫০০টাকা।এইরকম বাজেট হলে আপনিও এই ক্যামেরাটি কিনতে পারেন।নিজের অভিজ্ঞতা থেকে এইটুকু বলতে পারি আপনি কিনে কখনই ঠকবেন না।

সবাই ভালো থাকবেন।আর আমাদের সাথেই থাকবেন।ভবিষ্যতে যেন আরও ভালো পোস্ট নিয়ে আপনাদের সামনে আসতে পারি দোয়া করবেন।ধন্যবাদ।