ওড়ো অবাধে হয়ে অবাধ্য
        অর্জিত হোক যা কিছু অসাধ্য...

অতি বুদ্ধিমত্তার অধিকারীরা সাধারণত রাত জাগতে পছন্দ করেন। সেই সঙ্গে তারা বেশ অগোছালো এবং অশ্রাব্য ভাষায় গালিগালাজেও পটু। সম্প্রতি এক গবেষণায় এই তথ্য প্রমাণিত হয়েছে।

বিজ্ঞানীদের আইকিউ টেস্টে দেখা গেছে, যারা রাতে জেগে থাকতে পছন্দ করেন, জিনিসপত্তর ছড়িয়ে ছিটিয়ে রাখেন এবং গালিগালাজ করে কথা বলেন, তারাই অন্যদের চেয়ে বেশি বুদ্ধিমান।

বুদ্ধিমত্তা বেশি থাকার কারণে যে কোন পরিস্থিতিতে তারা সহজেই সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে পারেন। তবে যদি কোন কারণে তারা চিৎকার করার সুযোগ পেয়ে যান, তখন ইচ্ছেমতো চিৎকার করে নেন। যদিও আমাদের মধ্যে একটি ধারণা প্রচলিত রয়েছে যে, যারা যেকোন পরিস্থিতিতে মাথা গরম করেন এবং চিৎকার করতে থাকেন তারা বোকা। কিন্তু বৈজ্ঞানিক গবেষণায় প্রমাণিত হলো যে, বিষয়টি এমন নয়।

বুদ্ধিমানদের রাত জাগার অভ্যাস কিন্তু শিশুকাল থেকেই। মার্কিন বেশ কিছু বুদ্ধিমান তরুণ-তরুণীর ওপর গবেষণা করে দেখা গেছে, শিশুকাল থেকেই তারা রাতে দেরিতে বিছানায় যেতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন। গবেষণায় দেখা গেছে, বড় হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে বুদ্ধিমানদের চেয়ে অতি বুদ্ধিমানদের মধ্যে রাত জাগার প্রবণতা বাড়তে থাকে।

গবেষণায় দেখা গেছে, আইকিউ পরীক্ষায় যারা ৭৫ এর কম নম্বর পেয়েছেন তারা সাধারণত রাত ১১টা ৪০ এর মধ্যে বিছানায় চলে যান। অপরদিকে যারা পরীক্ষায় ১২৫ এর বেশি নম্বর পেয়েছেন তারা বিছানায় যান সাড়ে বারোটার দিকে।

ইউনিভার্সিটি অব মিনোসোটার গবেষণায় বলা হয়েছে, অতি বুদ্ধিমানদের জিনিসপত্তর কখনো গোছানো থাকে না। সেটি অফিসের ডেস্ক হোক কিংবা তার ব্যক্তিগত রুম জিনিসপত্র ছড়িয়ে ছিটিয়ে রাখতেই তারা বেশি পছন্দ করে।